বাংলাদেশে অনেক মানুষ আছে যারা নাকি লাখ লাখ টাকা হাতে নিয়ে গুড়ে বেরাচ্ছেন। তাদের নিজের কর্মসংস্থান হিসাবে কি ব্যবসা শুরু করা যায় তা চিন্তা করে এক পা এগিয়ে দু পা পিছিয়ে যায়। ব্যবসা করতে হলে হার না মানা মনোভাব থাকতে হবে। সে জন্য আজকে আমি অল্প পুজিতে লাভজনক একটা পাইকারি ব্যবসা নিয়ে কথা আলোচনা করব। সেই ব্যবসাটা হলো চাউলের পাইকারি ব্যবসা। চাউল হলো মানুষের নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মধ্যে অন্যতম। ভাত হলো বাংলাদেশের মানুষের প্রধান খাদ্য। আদিবাসী থেকে বর্তমান এবং ভবিষ্যতে ও বাংলাদেশ মানুষের প্রধান খাদ্য ভাত থাকবে। কারণ চাউলের পাইকারি ব্যবসা হলো একটি স্থানীয় ব্যবসা। এই ব্যবসায় কোন লোকসান নাই। আপনি চাইলে নিজের কর্মসংস্থান হিসাবে এই ব্যবসা বেছে নিতে পারেন।

চালের নাম

rice name

চালের ব্যবসা করতে হলে আগে আপনাকে চালের নাম জানতে হবে। কারণ বাংলাদেশে অনেক রকমের চাল রয়েছে জার নাম আমরা অনেকেই জানিনা। আসুন যেনে নেই চালের নাম: ইরি, বোরো, আউশ, আমন, নাজির সাইল, লতা সাইল, বাঁশিরাজ, হাসেমি, কাজল লতা, মিনিকেট ইত্যাদি।

চালের দাম

The price of rice

চালের ব্যবসা করতে হলে বিভিন্ন ধরনের চালের দাম জানতে হবে। চিকুন চাল কতো দাম, মোটা চাল কতো দাম, মিনিট চলের কতো দাম ইত্যাদি জানতে হবে।

চালের ব্যবসার মূলধন

Capital of rice business

চালের পাইকারি ব্যবসা শুরু করতে হলে আপনার সর্বনিম্ন ২ লাখ টাকা পুজি নিয়ে ব্যবসা শুরু করতে হবে। আপনার যদি বেশি পুজি থাকে তাহলে আপনি ঐব্যবসায় খাটাতে পারবেন। তাতে বেশি লাভ হবে।

চালের ব্যবসার জন্য দোকান

Shop for rice trading

চালের ব্যবসা করতে হলে প্রথমত আপনাকে বাজারে র্নিদিসঠ একটা স্থান নির্বাচন করতে হবে। এই রকম জায়গা নির্বাচন করতে হবে যেখানে নাকি সবসময় মানুষ চলাচল করে থাকে এবং গাড়ি চলাচলের ব্যবস্থা রয়েছে। যাতে করে খুচরা পাইকাররা খুব সহজে আপনার দোকান্টা চিনতে পারে।

চালের ব্যবসার লাভ লোকসান

Profit and loss of rice business

চালের পাইকারি ব্যবসা করে অনেক মানুষ সাফল্য অর্জন করেছে। চাল হচ্ছে মানুষের নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মধ্যে অন্যতম। এটা প্রতিদিন লাগবেই। চালের ব্যবসায় কোন লোকসান নাই। বরং অনেক লাভ রয়েছে।

চালের গুদামঘর

Rice warehouse

চালের পাইকারি ব্যবসা করতে হলে আপনাকে আগে একটি গুদামঘরের প্রয়োজন হবে।  যাতে করে আপনি চাউল stock করে রাখতে পারেন। কারণ চালের মৌসমে চাল কিনে তা গুদাম ঘরে stock করে রাখলে পরিবর্তিসময়ে তা চওড়া দামে বিক্রি করা যায়। এতে আপনি অনেক লাভবান হতে পারেন।

চালের পাইকারি ব্যবসা পরিচালনা

Wholesale business management of rice

চালের পাইকারি ব্যবসা পরিচালনা করতে হলে অনেক সময় অতিরিক্ত লোকের প্রয়োজন হয়। আবার অনেক সময় অতিরিক্ত লোকের প্রয়োজন হয় না। সেটা আপনার উপর নির্ভর করবে। যদি আপনি মনে করেন যে আপনার ব্যবসার জন্য অতিরিক্ত লোকের প্রয়োজন তাহলে লোক নিতে পারন
See also  গুলিস্তান পাইকারি মার্কেট